গাজায় যুদ্ধবিরতির মেয়াদ আরও বাড়াতে কূটনৈতিক উদ্যোগ


Md Firoj প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ১, ২০২৩, ১২:৫১ অপরাহ্ন /
গাজায় যুদ্ধবিরতির মেয়াদ আরও বাড়াতে কূটনৈতিক উদ্যোগ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

গাজায় যুদ্ধবিরতির মেয়াদ আরও বাড়ানোর জন্য চেষ্টা করছেন মিসরীয় ও কাতারি কূটনৈতিকরা। বৃহস্পতিবার (৩০ নভেম্বর) যুদ্ধবিরতির মেয়াদ বাড়ানোর পাশাপাশি বন্দীদের মুক্তি এবং মানবিক সহায়তা প্রদানের চেষ্টাও করছেন তারা। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি এ খবর জানিয়েছে।

মিশরের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থার এক বিবৃতিতে বলেছে, বৃহস্পতিবার সপ্তম দিনের জন্য যুদ্ধবিরতির মেয়াদ বাড়ানোর চেষ্টা করছে আলোচকেরা।

মিসরের রাষ্ট্রীয় তথ্য পরিষেবার প্রধান দিয়া রাশওয়ান এক বিবৃতিতে বলেন, যুদ্ধবিরতির চুক্তি অনুযায়ী হামাসের হাতে ১০ ইসরায়েলি জিম্মি এবং ৩০ জন ফিলিস্তিনি বন্দী মুক্তি দেওয়ার কথা।

তিনি আরও বলেন, গাজা উপত্যকার উত্তর ও দক্ষিণে মানবিক সাহায্য অব্যাহত রাখার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাবে মিসর।

অবরুদ্ধ গাজায় ইসরায়েলের টানা ৫১ দিনের হামলার পর কাতারের মধ্যস্ততায় যুদ্ধবিরতি কার্যকর করা হয়েছে। চুক্তির শর্ত অনুযায়ী, যুদ্ধবিরতির প্রথম ৪ দিনে ১৫০ ফিলিস্তিনি বন্দীকে মুক্তি দিয়েছে ইসরায়েল। তাদের মধ্যে ১১৭ জন শিশু ও ৩৩ জন নারী। অপর দিকে হামাস ৬৯ জিম্মিকে মুক্তি দিয়েছে। তাদের মধ্যে ৫১ জন ইসরায়েলি ও ১৮ জন অন্যান্য দেশের নাগরিক।

বর্ধিত দুই দিনের প্রথম দিনে বা যুদ্ধবিরতির পঞ্চম দিনে হামাস-ইসরায়েলের মধ্যকার সমঝোতা চুক্তি অনুসারে, ৩০ ফিলিস্তিনিকে মুক্তি দিয়েছে ইসরায়েল। অপরদিকে ১২ জিম্মিকে মুক্তি দিয়েছে হামাস।

ইসরায়েল ও হামাসের মধ্যে যুদ্ধবিরতির মেয়াদ বৃদ্ধির দ্বিতীয় দিনে গাজা থেকে আরো ১৬ জিম্মি মুক্তি পেয়েছেন। বিনিময়ে ইসরায়েলের কারাগার থেকে মুক্তি মিলেছে আরো ৩০ ফিলিস্তিনি কারাবন্দির।