উত্তাপ ছড়ানো ম্যাচে ব্রাজিলকে হারালো আর্জেন্টিনা


Md Firoj প্রকাশের সময় : নভেম্বর ২২, ২০২৩, ৭:৪১ পূর্বাহ্ন /
উত্তাপ ছড়ানো ম্যাচে ব্রাজিলকে হারালো আর্জেন্টিনা

স্পোর্টস ডেস্ক

দাঙ্গা-হাঙ্গামার ম্যাচে ব্রাজিলকে হারিয়ে জয়ে ফিরলো আর্জেন্টিনা। বুধবার ১০ জনের স্বাগতিক দলকে হারালো তারা। দক্ষিণ আমেরিকান অঞ্চলের বিশ্বকাপ বাছাইয়ে ১-০ গোলে জিতেছে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। আগের ম্যাচে উরুগুয়ের কাছে ২-০ গোলে হেরেছিল আর্জেন্টিনা। আর ব্রাজিল হেরে গেলো টানা তিন ম্যাচ।

মারাকানা স্টেডিয়ামে খেলা শুরু হওয়ার আগেই দাঙ্গা। দর্শকদের ওপর পুলিশের লাঠিচার্জ। এমন বাজে পরিস্থিতির মুখোমুখি হতে হবে, কল্পনাই করেননি আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়রা। ম্যাচ শুরু হলো ২৫ মিনিট পর। কিন্তু মাঠেও চললো দাঙ্গা-হাঙ্গামা। ব্রাজিলের খেলোয়াড়রা শুরু থেকে আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়দের ওপর চড়াও। ৪৫ মিনিট শেষে কোনও দল গোল পায়নি। তবে ফাউল হয়েছে ২২টি, তার মধ্যে ব্রাজিলই করেছে ১৬টি! পুরো ম্যাচে ৪২টি ফাউল হয়েছে, ২৬টিই স্বাগতিকদের।

খেলা শুরু হওয়ার কথা ছিল বাংলাদেশ সময় সকাল সাড়ে ৬টায়। কিন্তু অপ্রীতিকর পরিস্থিতির কারণে নির্ধারিত সময়ের চেয়ে প্রায় আধঘণ্টা পর মাঠে নামেন ফুটবলাররা। ব্রাজিলিয়ান গণমাধ্যম গ্লোবো সূত্রে জানা গেছে, ঝামেলার সূত্রপাত আর্জেন্টিনার জাতীয় সংগীত বাজার সময় ব্রাজিলের সমর্থকরা দুয়ো দেওয়া থেকে। গ্যালারিতে দুই দেশের সমর্থকদের মধ্যে অস্থিরতা তৈরি হয়। গ্যালারির এক অংশে আর্জেন্টাইন সমর্থকদের ওপর পুলিশ মারমুখী হয়ে উঠলে আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়রা তাদের শান্ত করার চেষ্টা করেছিলেন। পরে তারা টানেলের দিকে চলে যান। অবশ্য ব্রাজিলের খেলোয়াড়দের মাঠেই অনুশীলন করতে দেখা যায়।

এক ভিডিওতে পুলিশের ওপর মেজাজ হারাতে দেখা গেছে এমিলিয়ান মার্তিনেজকে। আর্জেন্টাইন দর্শকদের ওপর পুলিশের লাঠিচার্জে ক্ষিপ্ত হন তিনি। পুলিশকে ধাক্কা দেন আর্জেন্টিনার গোলকিপার। পরে তাকে সরিয়ে আনেন অন্যরা।

ম্যাচ শুরুর আগের উত্তাপ ছিল মাঠেও। ৩৪ মিনিটের মধ্যে তিনটি হলুদ কার্ড পায় ব্রাজিল। ডি পলের মুখে আঘাত করে হলুদ কার্ড দেখেন রাফিনহা। ফুটবলের চেয়ে আর্জেন্টাইন খেলোয়াড়দের দিকেই বেশি নজর ছিল স্বাগতিকদের। একবার ব্রাজিলের কোচ দিনিজকে রেফারি সতর্ক করে দেন।

এরই মধ্যে ব্রাজিল একমাত্র সুযোগ পায় ৪৪ মিনিটে। এমিলিয়ান মার্তিনেজ কর্নার কিক পাঞ্চ করলে গ্যাব্রিয়েল মার্তিনেল্লির শট ব্লক করেন আর্জেন্টাইন ডিফেন্ডার।

দ্বিতীয়ার্ধে গোলের জন্য মরিয়া হয়ে ওঠে দুই দল। ৫৪ মিনিটে রাফিনহা ও চার মিনিট পর মার্তিনেল্লির শট রুখে দেন মার্তিনেজ। দুই প্রচেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার মাশুল গুনতে হয় ব্রাজিলকে। ৬৩ মিনিটে জিওভান্নি লু চেলসোর কর্নার কিক। বাতাসে ভেসে আসা বল দুই মার্কারকে টপকে জোরালো হেডে জাল কাঁপান নিকোলাস ওতামেন্দি। মারাকানার গ্যালারি গর্জে ওঠে। 

গোল শোধের চেষ্টা করেও পারেনি ব্রাজিল। উল্টো ৮১ মিনিটে ডি পলকে ফাউল করে সরাসরি লাল কার্ড দেখেন জোয়েলিংটন। একজন কম নিয়ে স্বাগতিকরা ঘুরে দাঁড়াতে ব্যর্থ হয়।

৬ ম্যাচে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষস্থান ধরে রেখেছে আর্জেন্টিনা। ৭ পয়েন্ট নিয়ে ষষ্ঠ স্থানে নেমে গেছে ব্রাজিল। বলিভিয়াকে ৩-০ গোলে হারিয়ে উরুগুয়ে দুই নম্বর স্থানে, তাদের অর্জন ১৩ পয়েন্ট।